২০২০ সালের ছবিকে তুরস্কের দাবানলে সাথে জুড়ে ভুয়ো পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে

False International

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় দুটি ছবি শেয়ার করে দাবি করা হচ্ছে, তুরস্কবাসী নামাজ পড়ার সময় বৃষ্টি হয় এবং দাবানলের আগুন থেমে যায়। প্রথম ছবিতে দেখা যাচ্ছে, একজন বয়স্ক লোক মাথায় টুপি এবং মুখে মাস্ক পরে বৃষ্টিতে ভিজে রাস্তার ওপর নামাজ পড়ছেন। অন্য ছবিতে দেখা যাচ্ছে একজন লোক মাটিতে বসে এবং আরেকজন দাড়িয়ে বৃষ্টির মধ্যে দোয়া পড়ছেন। 

পোস্টের ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “ভয়াবহ দাবানলে জ্বলছিল তুরস্ক। অতঃপর তুরস্কের দ্বীন মন্ত্রী হযরত মাওলানা ডক্টর আলী আরবাশ হাফিজাহুল্লাহ বৃষ্টির জন্য দোয়ার আহ্বান জানান। এটা শুনে নাস্তিক সে/ক‍্যু/লা/র/দের মধ্যে হাসাহাসি শুরু হয়। কারণ তখন আবহাওয়া অনুযায়ী বৃষ্টির আরো কিছু দিন দেরি ছিল। কিন্তু তাদের চমক ভাঙ্গল তখন যখন দোয়ার বরকতে নেমে এলো অঝোর ধারায় রহমতের বৃষ্টি। নিভে গেল দাবানল। কিন্তু গ্রীসে এখনো জ্বলছে ভয়াবহ আগুন। সুবহান আল্লাহ! সুবহান আল্লাহ!!”

তথ্য যাচাই করে আমরা দেখতে পেয়েছি এই দাবি ভুয়া এবং ভিত্তিহীন। ২০২০ সালের দুটি ছবিকে তুরস্ক দাবানলের সাথে যুক্ত করে বিভ্রান্তিকর পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে। 

download (99).png
ফেসবুক পোস্টআর্কাইভ
download (100).png

উল্লেখ্য, গত ৭ অগস্ট বিভিন্ন এলাকায় বৃষ্টিপাতে ফলে তুরস্কের ভয়াবহ দাবানল প্রায় নিয়ন্ত্রণে আসে। পাঁচ হাজারের বেশি দমকল কর্মী ১১ দিন ধরে এই আগুন নেভানোর কাজে দিন রাত পরিশ্রম করে। অন্যদিকে, গ্রীসে দাবানল আরও ভয়াবহ রুপ নিয়েছে। এভিয়া দ্বীপের বাসিন্দাদের নিরাপদ স্থানে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। 

তথ্য যাচাই

এই দাবির সত্যতা যাচাই করতে ছবি দুটিকে গুগলে রিভার্স ইমেজ সার্চ করি। খুব সহজেই এর অনুসন্ধান পেয়ে যাই। 

প্রথম ছবি

Pic 1.jpg

রিভার্স ইমেজ সার্চ করতেই তুরস্কের সংবাদ মাধ্যম ‘ডেইলি সাবাহ’র ২০২০ সালের ২১ সেপ্টেম্বরের একটি প্রতিবেদনে এই ছবিটি দেখতে পাই। জানতে পারি, তুরস্কের বিভিন্ন রকম ধর্মীয় প্রথার মধ্যে অন্যতম হল ‘বৃষ্টির দোয়া’। চাষের জমির উর্বরতা বাড়ানো এবং ফসল ভালো হওয়ার জন্য তুরস্কবাসী বৃষ্টির জন্য আল্লাহার কাছে দোয়া করে। তুর্কি ভাষায় এটিকে বলা হয় ‘ইয়ামুর দুয়া’। 

Turkey post summer rain prayer.png
প্রতিবেদন আর্কাইভ

দ্বিতীয় ছবি

Pic 2.jpg

এই ছবির রিভার্স ইমেজ সার্চ করে ফলাফলে ‘টিআরটি হাবের’ নামে একটি তুর্কি ভাষার সংবাদ মাধ্যমে এর অনুসন্ধান পাওয়া যায়। ২০২০ সালের ১৯ জুন তারিখের এই প্রতিবেদন থেকে জানতে পারি, করোনা ভাইরাসের কারনে কোভিড বিধি মেনে জুম্মার দিন রাজধানী আঙ্কারা শহরে বৃষ্টির মধ্যে নামাজ আদায় করেন তুরস্কবাসী। 

download - 2021-08-11T130840.715.png
প্রতিবেদন আর্কাইভ

নিষ্কর্ষঃ তথ্য যাচাই করে ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো সিদ্ধান্তে এসেছে উপরোক্ত দাবিটি ভুল। ২০২০ সালের দুটি ছবিকে তুরস্ক দাবানলের সাথে যুক্ত করে বিভ্রান্তিকর পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে।

Avatar

Title:২০২০ সালের ছবিকে তুরস্কের দাবানলে সাথে জুড়ে ভুয়ো পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে

Fact Check By: Rahul A 

Result: False

Leave a Reply

Your email address will not be published.