প্রধানমন্ত্রীর পুরনো ভিডিও ক্লিপকে সম্প্রতি ভারতীয় নুপুর শর্মা বিতর্কের সাথে জুড়ে ভুয়া পোস্ট ভাইরাল  

False Social

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে একটি ভিডিও শেয়ার করে দাবি করা হচ্ছে, মুহাম্মাদ (সা:) বিরোধী মন্তব্য বিতর্ক ঘিরে ভারতকে ভিডিও বার্তা দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পোস্টের এই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে শেখ হাসিনা প্রেস কনফারেন্সের মাধ্যমে বলছেন, “ভারতেও এমনকিছু যাতে না করা হয়, যার প্রভাব আমাদের দেশে এসে পড়ে এবং আমাদের দেশের হিন্দু সম্প্রদায়ের ওপর পড়ে।” 

পোস্টের ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “#মুসুলমানের_সন্তার_এই_বক্তব্য_শুনে_কখনো_আওয়ামীলীগ-করতে পারেনা নবীকে নিয়ে কটুক্তি করায় প্রধানমন্ত্রী এটা কি বললেন ? তিনি মুসলিম হয়ে এ কথা বলা টিক হয় নি… আমাদের নবীকে নিয়ে যদি বাংলাদেশ সরকার ও কটুক্তি করে তাহলে বাংলাদেশ সরকার কে ও মাফ করা যাবে না এটা আমাদের ঈমানী দায়িত্ব…।”    

তথ্য যাচাই করে আমরা জানতে পারি পোস্টের দাবি ভুয়া ও বিভ্রান্তিকর। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ২০২১ সালের ভিডিও ক্লিপকে ভারতের নূপুর শর্মার নবী মুহাম্মদ (সা:) বিরোধী মন্তব্য বিতর্কের সাথে জুড়ে ভুয়া পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে। 

ফেসবুক পোস্ট  

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি ভারতের রাজনৈতিক দল বিজেপির নেতা নূপুর শর্মা এবং নবীন জিন্দাল ইসলাম ধর্মের নবী হযরত মুহাম্মাদকে (সা:) নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে। এর পরেই ভারত সহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় প্রতিবাদ মিছিলের ঘটনা আসে। ভারতের বিভিন্ন জায়গায় এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে অশান্তির সৃষ্টি হয়। 

তথ্য যাচাই 

এই দাবির সত্যতা যাচাই করতে আমরা ইউটিউবে প্রাসঙ্গিক কিওয়ার্ড সার্চ করি। ফলে নিউজ বাংলা২৪-এর ইউটিউব চ্যানেলে এই ভিডিওটি খুঁজে পেয়ে যায়। ২০২১ সালের ১৪ অক্টোবর তারিখে আপলোড করা এই ভিডিওর শিরোনামে লেখা রয়েছে, “সাম্প্রদায়িকতা রুখতে সচেতন হতে হবে ভারতকে: প্রধানমন্ত্রী | Sheikh Hasina।”

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম “এবিপি আনন্দ”-এর চানেলেও এই ভিডিও কেন্দ্রিক একটি প্রতিবেদন পাওয়া যায়। নিচে ভিডিওটি দেওয়া হল। 

প্রসঙ্গত, ২০২১ সালের অক্টোবর মাসে কুমিল্লার এক দুর্গা মন্দিরে কোরান রাখা নিয়ে দুই সম্প্রদায়ের মধ্যে বচসা শুরু হয়। এই সময়েরই এই ভিডিও ক্লিপটিকে বর্তমানের দাবি করে শেয়ার করা হচ্ছে।  

প্রাসঙ্গিক কিওয়ার্ড সার্চের মাধ্যমে নবী বিরোধী মন্তব্যকে ঘিরে প্রধানমন্ত্রীর প্রতিক্রিয়া দেওয়ার কোনও খবর খুঁজে পাওয়া যায় না। এই একই ভিডিও ভারতেও ভাইরাল হয়।

তথ্য ও প্রমানের ভিত্তিতে প্রমানিত হয় বাংলাদেশ প্রধানমন্ত্রীর পুরনো ভিডিও ক্লিপকে সম্প্রতি নুপুর শর্মা বিতর্কের সাথে জুড়ে ভুয়া পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে। 

নিষ্কর্ষঃ তথ্য যাচাই করে ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো সিদ্ধান্তে এসেছে উপরোক্ত দাবিটি ভুল ও ভিত্তিহীন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ২০২১ সালের ভিডিও ক্লিপকে ভারতের নূপুর শর্মার নবী মুহাম্মদ (সা:) বিরোধী মন্তব্য বিতর্কের সাথে জুড়ে ভুয়া পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে।

Avatar

Title:প্রধানমন্ত্রীর পুরনো ভিডিও ক্লিপকে সম্প্রতি ভারতীয় নুপুর শর্মা বিতর্কের সাথে জুড়ে ভুয়া পোস্ট ভাইরাল

Fact Check By: Rahul A 

Result: False

Leave a Reply

Your email address will not be published.