নেইমারের আযানকে ভালো বলে নিজের ধর্মের প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করার খবরটি আসলে গুজব

False International

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একটি ভিডিও শেয়ার করে দাবি করা হচ্ছে, নেইমার আযানের প্রশংসা করে নিজের ধর্মের প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন। নেইমারের একটি সাংবাদিক সম্মেলনের ছবি সহ আরও অন্য কয়েকটি ছবিকে একসাথে জুড়ে ভিডিওটি বানানো হয়েছে। ভিডিওতে কথক বলছেন, নেইমারের একটি সাংবাদিক সম্মেলন চলাকালীন পাশে একটি মসজিদ থেকে আযান শুরু হয়। তখনই তিনি চুপ হয়ে যান। এরপর আযান শেষ হওয়ার পর ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার বলেন, আযান শুনতে তার খুব ভালো লাগে। তার নিজের ধর্ম এমন কিছু নেই। “আমি মুসলমানদের মসজিদের আযান খুব মন দিয়ে শুনি, আমার কাছে দারুন এক প্রশান্তি অনুভূত হয়, আমাদের ধর্মে তো এমন কিছু দেখিনা, কেমন ধর্ম পালন করি আমরা?”- মন্তব্য করে তিনি অসন্তোষ প্রকাশ করা হয়। ভিডিওতে এও বলা হয় নেইমার ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করতে পারে। 

ভিডিওর ওপর লেখা রয়েছে, “আযান নিয়ে নেইমারের খুব সুন্দর বক্তব্য ভালবাসা অভিরাম নেইমার।“ পোস্টের ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “- আযান নিয়ে নেইমারের খুব সুন্দর বক্তব্য ❤️ – ভালোবাসা অভিরাম Neymar Jr. ❤️🥀।“ 

তথ্য যাচাই করে আমরা দেখতে পাই এই দাবি ভুয়া এবং ভিত্তিহীন। নেইমারের আযানকে ভালো বলে নিজের ধর্মের প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করার খবরটি আসলে গুজব।  

ফেসবুক

তথ্য যাচাই

প্রথমত ভিডিওটি দেখেই স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে পুরো তথ্যই ভুল। স্ক্রিনশট নিয়ে আমরা গুগলে রিভার্স ইমেজ সার্চ করে দেখতে পাই, যেই সাংবাদিক সম্মেলনের ছবি দেওয়া হয়েছে সেটি আসলে সিংগাপুরে অনুষ্ঠিত হয়েছিল। ব্রাজিল জাতীয় দলের হয়ে ১০০ তম ম্যাচ খেলার বিষয়বস্তু নিয়ে কথা বলতেই সাংবাদিকদের ডাকা হয়েছিল। ‘চিনা ডেইলি’ নামে একটি সংবাদ মাধ্যেমের ২০১৯ সালের একটি প্রতিবেদনে এই সাংবাদিক সম্মেলনের খবর দেখতে পাই। ভিডিওতে যেই ছবিটি ব্যবহার করা হয়েছে সেটিও দেখতে পাওয়া যায় এই প্রতিবেদনে। খবরটি পড়ে জানতে পারি, তার ফুটবল জীবন নিয়ে বিভিন্ন রকম প্রশ্ন করা হয়েছিল। সেখানে আযান বা ইসলাম ধর্ম সম্পর্কিত কোনও কথা হয়নি। 

download (66).png
প্রতিবেদন আর্কাইভ

একটি মসজিদের ছবি দিয়ে ভিডিওতে দাবি করা হয় সাংবাদিক সম্মেলনের পাশেই ছিল সেই মসজিদ। রিভার্স ইমেজ সার্চ করে আমরা দেখতে পাই এটি ব্রাজিলের সাও পাওলোতে অবস্থিত। এর নাম ‘মসজিদ-এ-হামযা’। একদিকে সিংগাপুরের ছবির অন্যদিকে ব্রাজিলের মসজিদের ছবি। অসংগতি স্পষ্ট। 

এছাড়া, নেইমারের ইসলাম ধর্ম গ্রহণ নিয়ে আমরা কোনও খবর খুঁজে পাইনি। তার অফিসিয়াল সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে এজাতীয় কিছু পাওয়া যায়নি।  

নিষ্কর্ষঃ তথ্য যাচাই করে ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো সিদ্ধান্তে এসেছে উপরোক্ত দাবিটি ভুল। নেইমার আযানকে ভালো বলে নিজের ধর্মের অসন্তোষ প্রকাশ করার খবরটি আসলে গুজব।

Avatar

Title:নেইমারের আযানকে ভালো বলে নিজের ধর্মের প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করার খবরটি আসলে গুজব

Fact Check By: Rahul A 

Result: False

Leave a Reply

Your email address will not be published.